Dhaka 10:35 pm, Wednesday, 24 April 2024

হংকংয়ের চার সাবেক সাংসদসহ গণতন্ত্রপন্থি ধনকুবেরের কারাদণ্ড

  • Reporter Name
  • Update Time : 04:23:16 am, Saturday, 17 April 2021
  • 232 Time View

 

এনবি নিউজ : চৌদ্দ মাসের কারাদণ্ডে দণ্ডিত হয়েছেন হংকংয়ের গণতন্ত্রপন্থি সংবাদমাধ্যমের মালিক ধনাঢ্য ব্যবসায়ী জিমি লাই (৭৩)। ২০১৯ সালে সরকারবিরোধী বিক্ষোভে সমর্থন জানানোর অপরাধে জিমি লাই ও সাবেক চার সংসদ সদস্যসহ ১২ জনের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড হয়েছে। বিবিসির খবরে এমনটি বলা হয়েছে।

দুই বছর আগের গণতন্ত্রপন্থি বিক্ষোভে সমর্থন দেওয়ার দায়ে সাবেক চার সংসদ সদস্যসহ জিমি লাইকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেওয়া হয়। ১৮ আগস্টের ঘটনায় জিমি লাইয়ের ১২ মাস এবং বাকি আটজনকে আ মাস থেকে এক বছর এবং ৩১ জুলাইয়ের ঘটনায় লাইয়ের দুই মাসসহ অপর দুজনের আট মাস ও দুই মাস করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

চীন হংকংয়ের গণতন্ত্রপন্থিদের দমনপীড়ন ও মানবাধিকার লঙ্ঘনের পথ জোরদার করছে। এই কারাদণ্ডের মধ্য দিয়ে সেটি ফের প্রমাণিত হলো।

জিমি লাইয়ের প্রতিষ্ঠিত হংকংয়ের বহুল প্রচারিত পত্রিকা অ্যাপল ডেইলি হংকং ও চীনা প্রশাসনের নানান বিষয়ে খবর প্রচার করে বিরাগভাজনে পরিণত হয়েছে।

এ সপ্তাহের শুরুতে কারাগার থেকে তাঁর লেখা একটি চিঠি অ্যাপল ডেইলি পত্রিকায় প্রকাশিত হয়। সেখানে জিমি লাই বলেন, ‘সাংবাদিক হিসেবে ন্যায়বিচার চাওয়াটা আমাদের কর্তব্যের মধ্যে পড়ে। অন্যায় অবিচার আমাদেরকে ছেয়ে ফেলার আগ পর্যন্ত, আমরা আমাদের কর্তব্য পালন করে যাব।’

যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্ক টাইমসকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে জিমি লাই বলেছিলেন, ‘প্রশাসন আমার দৃঢ়তাকে ঘৃণা করে। তারা মনে করে, আমি সমস্যা সৃষ্টি করছি।’

জাতীয় নিরাপত্তা আইনের দুটিসহ আরও ছয় মামলা রয়েছে জিমির বিরুদ্ধে। এসব মামলায় তাঁর সর্বোচ্চ যাবজ্জীবন কারাদণ্ড হওয়ার সুযোগ আছে।

হংকংয়ের নিয়ন্ত্রণ বাড়াতে সেখানে জাতীয় নিরাপত্তা আইন চালু করে চীন। বেইজিংয়ের প্রতি নির্ভরশীলতা বাড়াতে সম্প্রতি নির্বাচনি আইনও পরিবর্তন করা হয়।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

হংকংয়ের চার সাবেক সাংসদসহ গণতন্ত্রপন্থি ধনকুবেরের কারাদণ্ড

Update Time : 04:23:16 am, Saturday, 17 April 2021

 

এনবি নিউজ : চৌদ্দ মাসের কারাদণ্ডে দণ্ডিত হয়েছেন হংকংয়ের গণতন্ত্রপন্থি সংবাদমাধ্যমের মালিক ধনাঢ্য ব্যবসায়ী জিমি লাই (৭৩)। ২০১৯ সালে সরকারবিরোধী বিক্ষোভে সমর্থন জানানোর অপরাধে জিমি লাই ও সাবেক চার সংসদ সদস্যসহ ১২ জনের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড হয়েছে। বিবিসির খবরে এমনটি বলা হয়েছে।

দুই বছর আগের গণতন্ত্রপন্থি বিক্ষোভে সমর্থন দেওয়ার দায়ে সাবেক চার সংসদ সদস্যসহ জিমি লাইকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেওয়া হয়। ১৮ আগস্টের ঘটনায় জিমি লাইয়ের ১২ মাস এবং বাকি আটজনকে আ মাস থেকে এক বছর এবং ৩১ জুলাইয়ের ঘটনায় লাইয়ের দুই মাসসহ অপর দুজনের আট মাস ও দুই মাস করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

চীন হংকংয়ের গণতন্ত্রপন্থিদের দমনপীড়ন ও মানবাধিকার লঙ্ঘনের পথ জোরদার করছে। এই কারাদণ্ডের মধ্য দিয়ে সেটি ফের প্রমাণিত হলো।

জিমি লাইয়ের প্রতিষ্ঠিত হংকংয়ের বহুল প্রচারিত পত্রিকা অ্যাপল ডেইলি হংকং ও চীনা প্রশাসনের নানান বিষয়ে খবর প্রচার করে বিরাগভাজনে পরিণত হয়েছে।

এ সপ্তাহের শুরুতে কারাগার থেকে তাঁর লেখা একটি চিঠি অ্যাপল ডেইলি পত্রিকায় প্রকাশিত হয়। সেখানে জিমি লাই বলেন, ‘সাংবাদিক হিসেবে ন্যায়বিচার চাওয়াটা আমাদের কর্তব্যের মধ্যে পড়ে। অন্যায় অবিচার আমাদেরকে ছেয়ে ফেলার আগ পর্যন্ত, আমরা আমাদের কর্তব্য পালন করে যাব।’

যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্ক টাইমসকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে জিমি লাই বলেছিলেন, ‘প্রশাসন আমার দৃঢ়তাকে ঘৃণা করে। তারা মনে করে, আমি সমস্যা সৃষ্টি করছি।’

জাতীয় নিরাপত্তা আইনের দুটিসহ আরও ছয় মামলা রয়েছে জিমির বিরুদ্ধে। এসব মামলায় তাঁর সর্বোচ্চ যাবজ্জীবন কারাদণ্ড হওয়ার সুযোগ আছে।

হংকংয়ের নিয়ন্ত্রণ বাড়াতে সেখানে জাতীয় নিরাপত্তা আইন চালু করে চীন। বেইজিংয়ের প্রতি নির্ভরশীলতা বাড়াতে সম্প্রতি নির্বাচনি আইনও পরিবর্তন করা হয়।