Dhaka 12:36 pm, Monday, 22 April 2024

কিছুদিনের মধ্যে পুতিনবিরোধী নেতা নাভালনির ‘মৃত্যু হতে পারে’, আশঙ্কা চিকিৎসকদের

  • Reporter Name
  • Update Time : 03:06:51 am, Sunday, 18 April 2021
  • 223 Time View

এনবি নিউজ ডেস্ক : রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের কড়া সমালোচক কারাবন্দি বিরোধী নেতা অ্যালেক্সেই নাভালনির (৪৪) চিকিৎসার ব্যবস্থা না নিলে কয়েকদিনের মধ্যে তাঁর মৃত্যু হতে পারে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা। সংবাদমাধ্যম বিবিসির খবরে এ কথা জানানো হয়েছে।

রক্ত পরীক্ষার ফলাফল দেখে চিকিৎসকেরা বলেছেন, যেকোনো সময় নাভালনির হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে যেতে পারে অথবা কিডনি বিকল হয়ে যেতে পারে।

প্রচণ্ড পিঠের ব্যথা ও পা অবশ হয়ে যাওয়ার সমস্যায় ভুগছেন নাভালনি। এর চিকিৎসার জন্য তিনি কারাবন্দি অবস্থায় গত ১৮ দিন ধরে অনশন পালন করছেন। নাভালনির স্ত্রী ইউলিয়ার বরাত দিয়ে সংবাদ সংস্থা অ্যাসোসিয়েটেড প্রেস (এপি) জানিয়েছে, অনশনের শুরু থেকে এ পর্যন্ত নাভালনির ওজন ৭৬ কেজি থেকে ৯ কেজি কমে গেছে।

অ্যালেক্সেই নাভালনির ব্যক্তিগত চিকিৎসক আনাস্তাসিয়া ভ্যাসিলিয়েভাসহ চারজন চিকিৎসক কারা কর্তৃপক্ষ বরাবর চিঠি লিখে জরুরি ভিত্তিতে নাভালনিকে দেখার অনুমতি চেয়েছেন।

ওই চিঠি টুইটারেও পোস্ট করেছেন ডা. ভ্যাসিলিয়েভা। তাতে বলা হয়, “নাভালনির শরীরে পটাশিয়ামের মাত্রা ‘মারাত্মক পর্যায়ে’ চলে গেছে। এর মানে যেকোনো মুহূর্তে কিডনি জোড়ার কার্যক্ষমতা এবং হৃদযন্ত্রের কর্মে সমস্যা দেখা দিতে পারে।”

রক্তে প্রতি লিটারে পটাশিয়ামের মাত্রা ৬.০ এমএমওলের বেশি হলেই চিকিৎসার প্রয়োজন পড়ে। সেখানে নাভালনির আইনজীবীর মাধ্যমে পাওয়া রক্ত পরীক্ষার রিপোর্টে দেখা গেছে, নাভালনির শরীরে পটাশিয়ামের মাত্রা ৭.১ এমএমওএল।

গত ফেব্রুয়ারিতে জার্মানি থেকে দেশে ফেরামাত্র বিমানের গতিপথ ঘুরিয়ে অনেক নাটকীয়তার মাধ্যমে নাভালনিকে আটক করে রাশিয়ার সরকার। বিষপ্রয়োগে হত্যাচেষ্টার শিকার হয়ে জার্মানিতে জরুরি চিকিৎসা নিতে যান তিনি।

গত বছরের আগস্টে নভিচক বিষপ্রয়োগ করা হলে নাভালনি প্রায় মারাই গিয়েছিলেন। তিনি এই বিষপ্রয়োগের ঘটনায় প্রেসিডেন্ট পুতিনকে নির্দেশদাতা হিসেবে সন্দেহ করেন। রুশ সরকার অবশ্য এই অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে আসছে।

নাভালনির সঙ্গে দেখা করে এসে তাঁর আইনজীবী জানিয়েছেন, বর্তমানে যে কারাগারে নাভালনিকে রাখা হয়েছে সেখানে কোনো চিকিৎসক নেই। পুরো ইউনিটের জন্য রয়েছে একজন প্যারামেডিক।

মানবাধিকার সংস্থা অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল বলছে, নাভালনিকে এমন অবস্থায় রাখা হয়েছে যেখানে নির্যাতনের মাধ্যমে তাঁকে ধীরে ধীরে হত্যার পর্যায়ে নেওয়া হতে পারে।

এদিকে, ৭০ জনেরও বেশি বিশ্বখ্যাত লেখক, শিল্পী ও গবেষক নাভালনির সুচিকিৎসা নিশ্চিত করার আহ্বান জানিয়ে প্রেসিডেন্ট পুতিন বরাবর চিঠি লিখেছেন। চিঠিটি দ্যা ইকনোমিস্ট ও ফ্রান্সের লা মন্ড পত্রিকায় ছাপা হয়েছে। এতে হলিউড অভিনেতা জুড ল, রালফ ফিয়েনস, বেনেডিক্ট কাম্বারব্যাচ, হ্যারি পটার লেখিকা জে কে রাউলিং ও পরিচালক কেন বার্নস।

অন্যদিকে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন গতকাল শনিবার সাংবাদিকদের সামনে বলেন, ‘নাভালনির যথাযথ চিকিৎসা একেবারেই হচ্ছে না।’ এর আগে গত মার্চে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা সংস্থার পক্ষ থেকে বলা হয়, নাভালনিকে বিষপ্রয়োগের পেছনে রাশিয়ার সরকারের হাত ছিল

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

কিছুদিনের মধ্যে পুতিনবিরোধী নেতা নাভালনির ‘মৃত্যু হতে পারে’, আশঙ্কা চিকিৎসকদের

Update Time : 03:06:51 am, Sunday, 18 April 2021

এনবি নিউজ ডেস্ক : রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের কড়া সমালোচক কারাবন্দি বিরোধী নেতা অ্যালেক্সেই নাভালনির (৪৪) চিকিৎসার ব্যবস্থা না নিলে কয়েকদিনের মধ্যে তাঁর মৃত্যু হতে পারে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা। সংবাদমাধ্যম বিবিসির খবরে এ কথা জানানো হয়েছে।

রক্ত পরীক্ষার ফলাফল দেখে চিকিৎসকেরা বলেছেন, যেকোনো সময় নাভালনির হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে যেতে পারে অথবা কিডনি বিকল হয়ে যেতে পারে।

প্রচণ্ড পিঠের ব্যথা ও পা অবশ হয়ে যাওয়ার সমস্যায় ভুগছেন নাভালনি। এর চিকিৎসার জন্য তিনি কারাবন্দি অবস্থায় গত ১৮ দিন ধরে অনশন পালন করছেন। নাভালনির স্ত্রী ইউলিয়ার বরাত দিয়ে সংবাদ সংস্থা অ্যাসোসিয়েটেড প্রেস (এপি) জানিয়েছে, অনশনের শুরু থেকে এ পর্যন্ত নাভালনির ওজন ৭৬ কেজি থেকে ৯ কেজি কমে গেছে।

অ্যালেক্সেই নাভালনির ব্যক্তিগত চিকিৎসক আনাস্তাসিয়া ভ্যাসিলিয়েভাসহ চারজন চিকিৎসক কারা কর্তৃপক্ষ বরাবর চিঠি লিখে জরুরি ভিত্তিতে নাভালনিকে দেখার অনুমতি চেয়েছেন।

ওই চিঠি টুইটারেও পোস্ট করেছেন ডা. ভ্যাসিলিয়েভা। তাতে বলা হয়, “নাভালনির শরীরে পটাশিয়ামের মাত্রা ‘মারাত্মক পর্যায়ে’ চলে গেছে। এর মানে যেকোনো মুহূর্তে কিডনি জোড়ার কার্যক্ষমতা এবং হৃদযন্ত্রের কর্মে সমস্যা দেখা দিতে পারে।”

রক্তে প্রতি লিটারে পটাশিয়ামের মাত্রা ৬.০ এমএমওলের বেশি হলেই চিকিৎসার প্রয়োজন পড়ে। সেখানে নাভালনির আইনজীবীর মাধ্যমে পাওয়া রক্ত পরীক্ষার রিপোর্টে দেখা গেছে, নাভালনির শরীরে পটাশিয়ামের মাত্রা ৭.১ এমএমওএল।

গত ফেব্রুয়ারিতে জার্মানি থেকে দেশে ফেরামাত্র বিমানের গতিপথ ঘুরিয়ে অনেক নাটকীয়তার মাধ্যমে নাভালনিকে আটক করে রাশিয়ার সরকার। বিষপ্রয়োগে হত্যাচেষ্টার শিকার হয়ে জার্মানিতে জরুরি চিকিৎসা নিতে যান তিনি।

গত বছরের আগস্টে নভিচক বিষপ্রয়োগ করা হলে নাভালনি প্রায় মারাই গিয়েছিলেন। তিনি এই বিষপ্রয়োগের ঘটনায় প্রেসিডেন্ট পুতিনকে নির্দেশদাতা হিসেবে সন্দেহ করেন। রুশ সরকার অবশ্য এই অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে আসছে।

নাভালনির সঙ্গে দেখা করে এসে তাঁর আইনজীবী জানিয়েছেন, বর্তমানে যে কারাগারে নাভালনিকে রাখা হয়েছে সেখানে কোনো চিকিৎসক নেই। পুরো ইউনিটের জন্য রয়েছে একজন প্যারামেডিক।

মানবাধিকার সংস্থা অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল বলছে, নাভালনিকে এমন অবস্থায় রাখা হয়েছে যেখানে নির্যাতনের মাধ্যমে তাঁকে ধীরে ধীরে হত্যার পর্যায়ে নেওয়া হতে পারে।

এদিকে, ৭০ জনেরও বেশি বিশ্বখ্যাত লেখক, শিল্পী ও গবেষক নাভালনির সুচিকিৎসা নিশ্চিত করার আহ্বান জানিয়ে প্রেসিডেন্ট পুতিন বরাবর চিঠি লিখেছেন। চিঠিটি দ্যা ইকনোমিস্ট ও ফ্রান্সের লা মন্ড পত্রিকায় ছাপা হয়েছে। এতে হলিউড অভিনেতা জুড ল, রালফ ফিয়েনস, বেনেডিক্ট কাম্বারব্যাচ, হ্যারি পটার লেখিকা জে কে রাউলিং ও পরিচালক কেন বার্নস।

অন্যদিকে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন গতকাল শনিবার সাংবাদিকদের সামনে বলেন, ‘নাভালনির যথাযথ চিকিৎসা একেবারেই হচ্ছে না।’ এর আগে গত মার্চে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা সংস্থার পক্ষ থেকে বলা হয়, নাভালনিকে বিষপ্রয়োগের পেছনে রাশিয়ার সরকারের হাত ছিল